1. bellal.dabur@gmail.com : Bellal :
  2. rand@rand.com : :
  3. admin@digontodhara.news : digonto :
  4. digontodhara@gmail.com : digontodhara@gmail.com :
  5. rbtv2020@gmail.com : muskan2050 :
  6. zillurk85@gmail.com : Zillur :
শেখ হাসিনা মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: হানিফ - Digonto Dhara,News শেখ হাসিনা মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: হানিফ - Digonto Dhara,News
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:১৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
যেখানে সেখানে ময়লা-আবর্জনার স্তূপ, অতিষ্ঠ শহরবাসী শিশু ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি সিরাজ শেখ’কে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১০ পাকিস্তানের হয়ে খেলতে চেয়ে ৫ বছর নিষিদ্ধ উসমান গোপালগঞ্জের শ্রীধাম ওড়াকান্দিতে মহাবারুনীর স্নানোৎসব জিম্মি চুক্তিতে হামাসকে রাজি করাতে মিসর ও কাতারের দ্বারস্থ বাইডেন চাঁদাবাজী করাকালীন কিশোর গ্যাং চক্রের ০৬ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১০ টি-টোয়েন্টিতেও হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ নারী দল ইরানে ‘সন্ত্রাসী হামলায়’ তিন নিরাপত্তা কর্মী নিহত ইসরাইলে অস্ত্র সরবরাহ বন্ধের আশা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর আসামি আবুল কালাম ও মাসুম’কে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১০

শেখ হাসিনা মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন: হানিফ

  • প্রকাশ কাল : বুধবার, ১৭ মে, ২০২৩
  • ২৫ জন দেখেছে

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ১৯ বারের বেশি হত্যাচেষ্টা করা হয়েছে। আল্লাহর রহমতে তিনি বেঁচে গেছেন কিন্তু ভীত হননি। শত বাধা, মৃত্যুভয় উপেক্ষা করে দেশের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন। দেশের জনগণ যতদিন শেখ হাসিনার পক্ষে আছে ততদিন কোনো অপশক্তি তার কোনো ক্ষতি করতে পারবে না।
বুধবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ৪৩তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, বঙ্গবন্ধু কখনো মৃত্যু ভয়ে আপস করেননি, স্বাধীনতার জন্য, মানুষের মুক্তির জন্য লড়াই-সংগ্রাম করেছেন কখনো ভীত হননি। ঠিক তেমনি বঙ্গবন্ধুকন্যাও মৃত্যুকে তুচ্ছ করে, আলিঙ্গন করে ১৭ মে দেশে ফিরে এসেছিলেন।

তিনি বলেন, একাত্তরে যারা স্বাধীনতার বিরোধিতা করেছে, পঁচাত্তরে বঙ্গবন্ধু হত্যার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশকে পাকিস্তানের তাবেদার রাষ্ট্র বানানোর চেষ্টা করেছে তারাই এখন নতুন করে ষড়যন্ত্র শুরু করেছে।

তিনি আরো বলেন, দেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে ঠিক সেই সময়ে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতাচ্যুত করতে আবার ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে। এই ষড়যন্ত্রের লক্ষ্য দেশের উন্নয়নকে স্তব্ধ করা, আইনের শাসন ধ্বংস করা।

হানিফ বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে সপরিবার হত্যাকাণ্ড ছিল পৃথিবীর সবচেয়ে বড় মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা। বঙ্গবন্ধুর খুনিকে আশ্রয় দিয়ে তারা বিচারের রায় কার্যকরের পথ বন্ধ করে দিয়েছে। আজ তারা কোন মুখে মানবাধিকারের কথা বলে?

আওয়ামী লীগের এই যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, ১৭ মে জাতির জন্য ঐতিহাসিক গুরুত্বপূর্ণ দিন। ১৯৪৭ সালে দেশভাগের পর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে দীর্ঘ ২৩ বছর লড়াই-সংগ্রামের মধ্য দিয়ে বিজয় অর্জিত হয়েছিল। ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিজয় অর্জিত হলেও তার পূর্ণতা ছিল না। ১৯৭২ সালের ১০ জানুয়ারি পাকিস্তানের কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে বঙ্গবন্ধু যখন দেশে আসলেন সেদিন বিজয় পূর্ণতা পেয়েছিল।

হানিফ বলেন, আজ ৪২ বছর পর এদেশের পানি অনেক গড়িয়েছে। ২০০৮ সালে নির্বাচনে বিজয়ের মাধ্যমে ক্ষমতায় আসার পর বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের বিচার করার মধ্যদিয়ে দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করেছেন শেখ হাসিনা। ১৯৭৫ সালের পর মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে পদদলিত করা হয়েছিল। বঙ্গবন্ধুকন্যা রাজাকার-আলবদরদের বিচার করে দেশকে মুক্তিযুদ্ধের ধারায় নিয়ে এসেছেন।

খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এধরনের আরও খবর
© All rights reserved © 2016 digontodhara.news
Theme Customized By BreakingNews